নতুন উইন্ডোজ ১০ আসছে আজ



আজ ২৯ জুলাই আনুষ্ঠানিকভাবে উইন্ডোজ ১০ অপারেটিং সিস্টেম উন্মুক্ত করছে মাইক্রোসফট। আসল উইন্ডোজ ৭ এবং তার পরবর্তী উইন্ডোজ সংস্করণ ব্যবহারকারীরা বিনা মূল্যে উইন্ডোজ ১০ সংস্করণটি হালনাগাদ করে নিতে পারবেন। এ জন্য মাইক্রোসফটের আউটলুক বা লাইভ মেইল অ্যাকাউন্ট থাকতে হবে।
নতুন অপারেটিং সিস্টেম সম্পর্কে মাইক্রোসফট জানিয়েছে, উইন্ডোজ ৮ সংস্করণের পর নয় বাদ দিয়ে সরাসরি উইন্ডোজ ১০ বাজারে ছাড়ার অর্থ হচ্ছে মানুষ যেভাবে ট্যাবলেট, ফোন ও কম্পিউটারে উইন্ডোজ ব্যবহার করে তাকে একীভূত করা।
মাইক্রোসফটের প্রধান নির্বাহী সত্য নাদেলা বিবিসিকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলেছেন, ‘উইন্ডোজ ১০ এক নতুন যুগের সূচনা করবে।’
মাইক্রোসফটের দাবি, উইন্ডোজ ১০ অপারেটিং সিস্টেম হবে অধিক দ্রুতগতির, অধিক নিরাপদ ও সহজ। নতুন এই অপারেটিং সিস্টেমে স্টার্ট বাটন ফিরে আসছে যা উইন্ডোজ ৮ এর সময় সরিয়ে ফেলেছিল মাইক্রোসফট। এ ছাড়াও ফিচার হিসেবে উন্নত ডিজিটাল সহকারী, দ্রুতগতির ব্রাউজার আনছে মাইক্রোসফট।
দীর্ঘদিন ধরেই মাইক্রোসফটের নতুন এই সফটওয়্যার প্রযুক্তি বিশ্বে আলোচনার কেন্দ্রে রয়েছে। মাইক্রোসফট কর্তৃপক্ষ বলছে, নতুন সফটওয়্যার দেখতে পরিচিত মনে হবে কিন্তু এতে নতুন অনেক ফিচার ব্যবহার করার সুবিধা থাকবে। মাইক্রোসফটের ওয়েবসাইট থেকে বিনা মূল্যে আজ থেকে এটি ডাউনলোড করা যাবে।

উইন্ডোজ ১০ ডাউনলোড করবেন যেভাবে:
১. উইন্ডোজ লোগো বা স্টার্ট বাটনে ক্লিক করতে হবে।
২. এরপর যে অ্যাপ উইন্ডোটি আসবে তাতে ‘রিজার্ভ ইয়োর ফ্রি আপগ্রেড’ ফিচারটিতে ক্লিক করতে হবে।
৩. রিজারভেশন নিশ্চিত করতে লাইভ বা আউটলুক ইমেইল অ্যাকাউন্ট দিতে হবে।
৪. যখন উইন্ডোজ রিজার্ভ প্রক্রিয়া শেষ হবে তারপর যখন নতুন সংস্করণ আসবে তখনই উইন্ডোজ হালনাগাদ হবে।
৫. হালনাগাদ সম্পূর্ণ হয়ে গেলে একটি নোটিফিকেশন আসবে।
৬. একবার ইনস্টল হয়ে গেলেই উইন্ডোজ ১০ এর অভিজ্ঞতা নেওয়া শুরু করতে পারবেন।

উইন্ডোজ ১০ হালনাগাদ করার সময় যা মনে রাখতে হবেআজ উইন্ডোজ ১০ উন্মুক্ত করছে মাইক্রোসফট।
১. উইন্ডোজ ব্যবহারকারীকে মনে রাখতে হবে, বিনা মূল্যে হালনাগাদ সংস্করণ পাওয়া গেলেও উইন্ডোজ ১০ এর ফাইল তিন গিগাবাইটের। এই ফাইল ডাউনলোড করার জন্য ডেটা খরচের বিষয়টি মাথায় রাখলে ভালো। অবশ্য রিজার্ভেশন যেকোনো সময় বাতিল করা যায়। উইন্ডোজ ১০ উন্মুক্ত হওয়ার পর এক বছরের মধ্যে যেকোনো সময় আপগ্রেড করে নিতে পারবেন ব্যবহারকারী।
২. উইন্ডোজ ১০ বিনা মূল্যে ডাউনলোড করা যাবে। মাইক্রোসফট কোনো অর্থ দাবি করবে না। ফ্রি বা বিনা খরচায় উইন্ডোজ ১০ আপগ্রেড করতে হলে আউটলুক বা লাইভ ইমেইল অ্যাকাউন্ট থাকতে হবে। মাইক্রোসফটের এই মেইল সেবাও ফ্রি।
৩. উইন্ডোজ ৭ ও উইন্ডোজ ৮.১ ডিভাইস ব্যবহারকারীরা এই হালনাগাদ পাবেন। উইন্ডোজ ৭ এন্টারপ্রাইজ, উইন্ডোজ ৮ বা ৮.১ এন্টারপ্রাইজ ও উইন্ডোজ আরটি/আরটি ৮.১ উইন্ডোজ ১০ এর হালনাগাদ পাবেন না।
৪. মাইক্রোসফটের ওয়েবসাইট বা আনসার ডেস্ক থেকে সাহায্য পাওয়া যাবে।

যাঁরা বিল্ড সংস্করণ ব্যবহার করছেন তাঁরা যা করতে পারেন
মাইক্রোসফট বেশ কিছুদিন ধরেই উইন্ডোজ ইনসাইডার প্রোগ্রামের মাধ্যমে উইন্ডোজ ১০ এর প্রিভিউ সংস্করণ নিয়ে পরীক্ষা চালিয়েছে। অনেকেই আগেভাগে উইন্ডোজ ১০ এর বিল্ড সংস্করণ ইনস্টল করে ব্যবহার করছেন। যাঁরা উইন্ডোজ ১০ এর সর্বশেষ প্রি-রিলিজ বিল্ড সংস্করণ ব্যবহার করছেন তাঁরা উইন্ডোজ ১০ এর হালনাগাদে বড় ধরনের পার্থক্য খুঁজে পাবেন না। যাঁরা দুই সপ্তাহ আগে মাইক্রোসফটের উন্মুক্ত করা বিল্ড ১০২৪০ সংস্করণটি ব্যবহার করছেন তাঁদের উইন্ডোজ ১০ হালনাগাদ না করলেও চলবে। উইন্ডোজ ৭ বা উইন্ডোজ ৮.১ ব্যবহারকারীরা আজ উইন্ডোজ ১০ হিসেবে মাইক্রোসফটের ওই বিল্ড সংস্করণটিই পাবেন। মাইক্রোসফটের অপারেটিং সিস্টেমের প্রধান টেরি মেয়ারসন এক ব্লগ পোস্টে লিখেছেন, যাঁদের উইন্ডোজের সর্বশেষ সংস্করণ ইনস্টল করা আছে তাঁদের জন্য পরামর্শ— মাইক্রোসফটের সর্বশেষ উন্মুক্ত করা সফটওয়্যার প্যাঁচ হালনাগাদ আছে কি না সেটা পরীক্ষা করে দেখুন।

বিশ্বের বৃহত্তম সফটওয়্যার নির্মাতা প্রতিষ্ঠান মাইক্রোসফটের ব্যবসার মূল অংশ হচ্ছে উইন্ডোজ। প্রায় ১৫০ কোটি উইন্ডোজ সফটওয়্যার ব্যবহারকারীর হিসেবে বিশ্বের ডেস্কটপ কম্পিউটারের বাজারের সিংহভাগ ধরে রেখেছে মাইক্রোসফট। কিন্তু বর্তমান যুগে স্মার্টফোন ও ট্যাবলেটের ব্যবহার বেড়ে যাওয়ায় বিশ্বজুড়ে কম্পিউটিং ডিভাইস হিসেবে মাত্র ১৪ শতাংশ মাইক্রোসফটের দখলে রয়েছে বলে বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান গার্টনার জানিয়েছে।


July 29, 2015, 1:56 pm
পূর্ববর্তী সংবাদ<<    পরবর্তী সংবাদ>> Share on Facebook
  • সর্বশেষ সংবাদ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • সর্বাধিক মতামত

Name  
Email  
Country  
Comments